Spirit of liberation war betrayed

AS WE observe the 44th anniversary of Independence Day on March 26, we see no light at the end of the tunnel, no sign of ending the latest political crisis and violence that began on January 5. We feel suffocated, trapped. We feel unsafe everywhere — roads, workplaces, educational institutions and even at home. Every day, unbearable cruelty has become common news. Attackers on civilians have been mostly invisible. With…বিস্তারিত

Bangladesh—A Model of Neoliberalism The Case of Microfinance and NGOs

In 2006, a few months after the Nobel Peace Prize for Muhammad Yunus and Grameen Bank was announced, I was visiting Germany. Quite understandably, I found nonresident Bangladeshis overwhelmed with joy and pride about the prize. Many Germans, including left academics and activists, looked at it as a victory over neoliberalism. One German activist theatre group invited me to the show of their latest drama, Taslima and the Microcredit. The…বিস্তারিত

ত্বকীর মুখ আমাদের সাহস

ত্বকীর মুখ আমাদের সাহসবাংলাদেশের জন্য গৌরবের এক কিশোর ত্বকী হত্যার দুই বছর হয়ে গেল। যে হত্যাকারীরা গ্রন্থপ্রেমী এক কিশোরকে গ্রন্থাগারের রাস্তা থেকে তুলে নির্যাতন করে হত্যার পর শীতলক্ষ্যায় ফেলে দিল, তারা এখন আর অজানা নয়। তদন্ত হয়েছে, অপরাধী শনাক্তও হয়েছে, কিন্তু তার পরও আটকে আছে বিচারকাজ। ত্বকী হত্যার বিচার চেয়ে সারা দেশের মানুষের সঙ্গে সঙ্গে স্থানীয় আওয়ামী লীগের অনেক নেতা-কর্মীও দাবি জানাচ্ছেন। কিন্তু অভিযুক্ত পরিবারের ক্ষমতা দলের চেয়ে বেশি। প্রতিদিন প্রধানমন্ত্রী, মন্ত্রী-নেতাদের মুখে নাশকতা…বিস্তারিত

এ সংঘাতে কার লাভ কার ক্ষতি

এ সংঘাতে কার লাভ কার ক্ষতিএক অনিশ্চিত অদ্ভুত নিষ্ঠুর অবস্থা পার করছি আমরা। পার হতে পারব কতটা, কেউ বলতে পারে না। এমনিতেই আমাদের স্বাভাবিক জীবনের গ্যারান্টি নেই, তার ওপর ক্ষমতার সংঘাতে সবকিছুই ঝুলে গেছে অনিশ্চয়তার চিকন সুতায়। একদিকে বিএনপি-জামায়াতের হরতাল-অবরোধে পেট্রলবোমা, আগুন ইত্যাদির আতঙ্ক, মৃত আর দগ্ধ মানুষের সারি। অন্য দিকে এই সমস্যার সমাধানের কথা বলে সরকারি সব বাহিনীর অনিয়ন্ত্রিত ক্ষমতার প্রয়োগ। পাইকারি গ্রেপ্তার পরিণত হচ্ছে গ্রেপ্তার-বাণিজ্যে। সন্ত্রাসী দমন পরিণত হয়েছে ক্রসফায়ার, বন্দুকযুদ্ধে। কোনো কোনো…বিস্তারিত

২১ ফেব্রুয়ারি, ভাষা ও মানুষের প্রান্তিকীকরণ

২১ ফেব্রুয়ারি যখন আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে, ততদিনে বাংলাদেশেই বাংলা ভাষার বাজারদর একদম নিচের দিকে। বাজার অর্থনীতির চাহিদা জোগানের ভারসাম্যে বাংলা ভাষার দামের এ নিুগতি। অতএব যে বাংলা ভাষার জন্য লড়াইকে কেন্দ্র করে ২১ ফেব্রুয়ারি একটি বিশেষ দিন হয়ে উঠল, সেই ভাষা মোটামুটি পরিত্যক্ত পর্যায়ে আসার কালে দিনটি আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করেছে। ফেব্রুয়ারি মাস তাই একদিকে গৌরবের অন্যদিকে প্রতারণা ও প্রহসনের মাস। ২১ ফেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে…বিস্তারিত

স্বাভাবিক জীবনের গ্যারান্টি চাই

স্বাভাবিক জীবনের গ্যারান্টি চাইচার দশক আগে নির্মল সেন দাবি জানিয়েছিলেন, ‘স্বাভাবিক মৃত্যুর গ্যারান্টি চাই’। এত বছর পরেও এই দাবি পূরণ হয়নি। কিন্তু এটাই তো একটি সভ্য গণতান্ত্রিক সমাজের নাগরিকদের ন্যূনতম দাবি। আমাদের নাগরিকদের অস্বাভাবিক মৃত্যুর বহু পথ চালু রেখেছে এ দেশের ক্ষমতাবানেরা। হরতাল, অবরোধ বা রাজনৈতিক সহিংসতা ছাড়াও তার কমতি নেই। কিছুদিনের মধ্যে একটি কারখানায় আগুন লেগে ১৩ জন মানুষ পুড়ে মরলেন, গার্মেন্টসে পানি খেয়ে অসুস্থ হলেন শতাধিক, কতজন মরেছেন তার হিসাব নেই,…বিস্তারিত

সন্ত্রাস সহিংসতার জমিন :জনবিনাশী রাজনীতি

সন্ত্রাস সহিংসতার জমিন :জনবিনাশী রাজনীতিযে দেশে মানুষের জীবন সবচাইতে তুচ্ছ, সেখানে নতুন আক্রমণ শুরু হয়েছে জনগণের বিরুদ্ধে। ৬ জানুয়ারি থেকে ৩৪ দিনে রাজনৈতিক সহিংসতায় নিহত হয়েছেন মোট ৮৫ জন। এরমধ্যে পেট্রোল বোমা ও আগুনে দগ্ধ হয়ে নিহত হয়েছেন ৫১ জন। এদের মধ্যে শিশু, নারী, তরুণ, বৃদ্ধ, ব্যবসায়ী, শিক্ষার্থী, পেশাজীবী শ্রমজীবী সবধরনের মানুষই আছেন। সংঘর্ষ ও ক্রসফায়ারে নিহত হয়েছেন ৩৪ জন। এরমধ্যে ক্রসফায়ারে বা বন্দুকযুদ্ধের নামে পুলিশ বা র্যাবের গুলিতে নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯ জন।…বিস্তারিত

ক্ষমতার বিষচক্রের বিরুদ্ধে জনগণের এজেন্ডা

প্রতিবারই বছর যখন শেষ হয় তখন সাংবাদিকরা ‘নতুন বছরের প্রত্যাশা’ নিয়ে জানতে চান। এটা গৎবাঁধা প্রশ্ন। গৎবাঁধা উত্তর পেলেই তারা খুশি থাকেন কিন্তু সে রকম উত্তর দিতে ইচ্ছা করে না। ‘আমি খুব আশাবাদী’ বলে বানানো আশাবাদ প্রকাশ করা তো প্রতারণা ছাড়া কিছু নয়। বছর শুরু হলেই তো সবকিছু বদলে যায় না। আগের বছর বা তারও আগের ধারাবাহিকতা যদি অব্যাহত থাকে, সংকটগুলো যদি জিইয়ে থাকে, তবে তার ফল তো পেতেই হবে।…বিস্তারিত

রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস দিয়ে অচলাবস্থা কাটবে না

রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস দিয়ে অচলাবস্থা কাটবে নাবর্তমান অচলাবস্থা ও সহিংস পরিস্থিতির কেন্দ্রে অন্যতম বিষয় হলো নির্বাচন। '২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচন না হলে অনির্বাচিত সরকার ক্ষমতা দখল করতো, তাতে বিপদ আরও বাড়তো', সরকারি দলের লোকজনের এ যুক্তি খুবই শক্তিশালী। কিন্তু যেভাবে নির্বাচন হয়েছে তার বিকল্প 'নির্বাচন না হওয়া' ছিল না, ছিল 'যথাযথ নির্বাচন হওয়া'। আমরা সবাই জানি, বাংলাদেশে নির্বাচন প্রক্রিয়ার যে দশা, সমাজে চোরাই টাকা আর সন্ত্রাস যেভাবে রাজনীতির পরিচালিকা শক্তি, তাতে সব দলের অংশগ্রহণ হলেও…বিস্তারিত

জনগণের নামে জনবিনাশী রাজনীতি

বাংলাদেশকে সর্বজনের জন্য উপযুক্ত বাসভূমি হিসেবে গড়ে তুলতে, সামনে অগ্রসর হতে, আমাদের যখন দরকার আরও অনেক গুরুতর বিষয়ে সমাজে বিতর্ক, রাজনৈতিক লড়াই তখন ‘ক্ষমতা হস্তান্তরের প্রাতিষ্ঠানিক প্রক্রিয়া’ এবং ‘যুদ্ধাপরাধীর বিচার’ এই দুটো অনিষ্পন্ন বিষয়কে কেন্দ্র করে রাষ্ট্র রাজনীতি এক বিষচক্রের মধ্যে হাবুডুবু খাচ্ছে। এক মাসেরও বেশি অতিক্রান্ত হল অনিশ্চিত, নিরাপত্তাহীন, প্রায় অচল অবস্থায় দেশ ‘চলছে’। পেট্রল বোমা, সহিংসতা, খুন, আগুন, আক্রমণ ও প্রতি-আক্রমণে মানুষ দিশেহারা। পরিস্থিতি ভয়াবহ আরও এই কারণে…বিস্তারিত

Page 17 of 27